রুমায় শারদীয় দূর্গাপূজা, সোমবার প্রতিমা বিসর্জন

প্রকাশিত: ১:১৩ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ২৫, ২০২০

মংহাইথুই মারমা, রুমা প্রতিনিধি।।

“যা দেবী সর্ব্বভূতেষু মাতৃরূপের সংস্থিতা সংস্থিতা, নমস্তস্যৈ নমস্তস্যৈ নমস্তস্যৈ নমো নমঃ” এই প্রতিপাদ্যকে নি‌য়ে প্রতি বছরের ন্যায় এ বছরেও বান্দরবানের রুমা উপজেলার শ্রী শ্রী হরি মন্দিরে শারদীয় দূর্গাপূজা উৎসবমুখরে নিয়মকানুন ও আইনশৃঙ্খলা মেনে ব্যাপক উৎসাহ উদ্দীপনার মধ্যদিয়ে কাল বিসর্জন দেয়া হবে।

মহাদশমী অনুষ্ঠিত হতে চলেছে আগামী সোমবার (২৬ অক্টোবর) ৯ কার্তিক সকাল ৯ টায় প্রতিমা বিসর্জন করে বিজয়াদশমী সাঙ্গ করতে হবে। মহাদশমীতে সূর্যোদয় ভোর ৫.৪৩ মিনিটে এবং সূর্যাস্ত বিকেল ৫টায়। পূর্বাহ্ণ চলবে সকাল ৯.২৯ মিনিট পর্যন্ত। দশমী থাকবে আগের দিন সকাল ১১.১২ মিনিট থেকে পরের দিন সকাল ১১.৩১ মিনিট পর্যন্ত।

মহাপঞ্চমী,মহাষষ্ঠী, মহাসপ্তমী, মহাঅষ্টমী,মহানবমী শেষে কাল সোমবার(২৬অক্টোবর) মহাদশমী পূজাদান এর শেষে বিকাল ৩টায় দিকে শারদীয় দূর্গা মাকে বাজারে প্রধান প্রধান সড়ক পদক্ষিণ করে,পরে সাংঙ্গু নদীতে বিসর্জন দেয়া হবে বলে জানিয়েছেন শারদীয় দূর্গাপূজা উৎসবের সভাপতি সুধীর দাশ।
দূর্গা মা এর বির্সজনের দিনে রুমা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোঃ আবুল কাশেম উৎসবে অংশগ্রহণ করবে বলে জানান, শারদীয় দূর্গাপূজা কমিটির সাধারন সম্পাদক কাঞ্চন কর্মকার।

এ সময় পূজার কেন্দ্রীয় কমিটির সহ সভাপতি বিশিষ্ট ঠিকাদার রতন দাশ এর সাথে একান্ত সাৎক্ষাকারে তিনি জানান, আগের বছরের চেয়ে এবারে ভিন্ন প্রেক্ষাপটে পুরোহিত এর কথার মতে দূর্গা মায়ের পূজা দিতে সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে করোনা প্রাদুর্ভাব এর কারনে স্বাস্থ্য ঝুঁকি এড়াতে হিন্দু ধর্মবিলম্বীদের মায়ের চরণে অঞ্জুলি দিতে পেরে নিজেকে অনেক ধন্য মনে করেছি।
তিনি আরো বলেন,দূর্গা মায়ের কাছে একতাই প্রত্যাশা সুস্থ, সবল ও সুরক্ষার লক্ষ্যের ভক্তরা সকলে মাস্ক পরিধান করে পূজারীতে বসেছেন।